ফাফ ডু প্লেসিস , ছবি: সংগৃহীত।

আকর্ষনীয় টুর্নামেন্ট বিপিএল খেলতে চান ডু-প্লেসিস

বিশ্বের অন্যতম আকর্ষনীয় টুর্নামেন্ট বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগে (বিপিএল) খেলার আগ্রহ প্রকাশ করেছেন দক্ষিণ আফ্রিকার সাবেক অধিনায়ক ফাফ ডু-প্লেসিস।

কোরোনাভাইরাস প্রতিরোধ

কোরোনাভাইরাস প্রতিরোধ

গতকাল রাতে তামিম ইকবালের আমন্ত্রণে ফেসবুক লাইভে এসে বাংলাদেশের ক্রিকেটের প্রশংসা করার পাশাপাশি বিপিএলে খেলার ইচ্ছা প্রকাশ করেন ডু-প্লেসিস।

দক্ষিণ আফ্রিকার অনেক তারকাই বিপিএলে খেলে গেছেন। এরমধ্যে আছেন, এবি ডি ভিলিয়ার্স, হাশিম আমলা, ডেভিড মিলার, রিলি রৌসু। কিন্তু ডু-প্লেসিস এখনো বিপিএল খেলেননি।

বিপিএলের আগের আসরগুলোর ড্রাফটে নিজের নাম রাখার ব্যাপারে কোন আগ্রহ দেখাননি ডু-প্লেসিস। তবে তামিমের আমন্ত্রনে, আগামী আসরে বিপিএলে খেলার ব্যাপারে আগ্রহ প্রকাশ করেছেন তিনি।

ডু-প্লেসিস বলেন, ‘অবশ্যই আমি বিপিএলে খেলতে চাই। কিন্তু আমি মনে করি না, এই বিষয় নিয়ে কথা বলার জন্য এটা সঠিক জায়গা কিনা। আমি জানি এটি দুর্দান্ত একটি টুর্নামেন্ট।’

নিজ দেশে বিপিএলের খেলা দেখতে পান না ডু-প্লেসিস। তবে ইএসপিএনক্রিকইনফোর মাধ্যমে বিপিএলের খোঁজখবর রাখেন তিনি। ডু-প্লেসিস বলেন, ‘আমরা দক্ষিণ আফ্রিকায় বিপিএল দেখতে পারিনা কিন্তু আমি ক্রিকইনফো থেকে বিপিএল এর খবররাখবর রাখি। যেসব খেলোয়াড়রা বিপিএল খেলে, আমি তাদের সাথে বিপিএল নিয়ে কথা বলি। কিন্তু আমি কখনো বিপিএলের খেলা সরাসরি দেখিনি।’

ডু-প্লেসিসের আগ্রহ দেখে তামিম বলেন, ‘দেখো আগামী বছর তোমাকে বিপিএলে আমার দলে খেলতে হবে।’

লাইভ চলাকালীন, ২০১৫ বিশ্বকাপের দুঃস্মৃতি মনে করেন ডু-প্লেসিস। ঐ আসরে সেমিফাইনালে নিউজিল্যান্ডের কাছে হেরে টুর্নামেন্ট শেষ করেছিলো প্রোটিয়ারা। ডু-প্লেসিস বলেন, ‘কোন ম্যাচ হেরে আমি একটা হতাশ হইনি। শুধুমাত্র আমি নই, আমাদের সকলেই ভেঙ্গে পড়েছিলো। ফ্লাইটের কারনে যে দু’দিন আমরা হোটেলে ছিলাম, ঐ দু’দিন আমরা কেইউ একে অপরের সাথে কথাও বলিনি।’

করোনাভাইরাসের বর্তমান পরিস্থিতি নিয়েও কথা বলেন ডু-প্লেসিস। অন্যান্য দেশের মত নিজ দেশের অবস্থাও ভালো নয় বলে জানান তিনি। লকডাউনের কারনে দক্ষিণ আফ্রিকার অনেক মানুষ, খাবারের জন্য লড়াই করছে এবং অনেকেই চাকরি হারিয়েছে।

করোনাভাইরাসের মধ্যে বাংলাদেশের মানুষদের আসন্ন ঈদুল ফিতর ভালো কাটবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেছেন।

Social Share

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *