অস্ট্রেলিয়া -ভারত ওয়ানডে সিরিজ ,ছবি সংগৃহীত।

ওয়ার্নার-ফিঞ্চের জোড়া সেঞ্চুরিতে লজ্জার হার ভারতের

মুম্বাই, ১৫ জানুয়ারি ২০২০  : মুম্বাইতে ভারতের ছুড়ে দেয়া ২৫৬ রানের টার্গেট উদ্বোধনী জুটিতেই স্পর্শ করে ফেললেন অস্ট্রেলিয়ার দুই ওপেনার ডেভিড ওয়ার্নার ও অধিনায়ক অ্যারন ফিঞ্চ। ম্যাচের সেরা ওয়ার্নারের ১২৮ ও ফিঞ্চের ১১০ রানের সুবাদে ভারতকে সিরিজের প্রথম ম্যাচে ১০ উইকেটে হারালো সফরকারী অস্ট্রেলিয়া। যার মাধ্যমে ২০০৫ সালের পর আবারো দেশের মাটিতে ১০ উইকেটের ব্যবধানে ম্যাচ হারের লজ্জা পেল বিরাট কোহলির দল। এই জয়ে তিন ম্যাচের সিরিজে ১-০ ব্যবধানে এগিয়ে গেল অস্ট্রেলিয়া।

মুম্বাইয়ে টস জিতে প্রথমে বোলিং করতে নামে অস্ট্রেলিয়া। বল হাতে ভারতের ব্যাটসম্যানদের উপর চেপে বসেন অস্ট্রেলিয়ার তিন পেসার ও দুই স্পিনার। সময় মতো উইকেট তুলে নিয়ে ভারতকে ২৫৫ রানেই গুটিয়ে দেন তারা। শিখর ধাওয়ান ও লোকেশ রাহুলের ১২১ রানের জুটির পর ভারতের অন্যান্য ব্যাটসম্যানদের বড় স্কোর গড়ার সুযোগই দেননি অসি বোলাররা। ৭৪ রানের ইনিংস খেলে ধাওয়ান ভারতের পক্ষে সর্বোচ্চ রান সংগ্রাহক। ৪৭ রান করেন রাহুল। অস্ট্রেলিয়ার পেসার মিচেল স্টার্ক ৩টি, প্যাট কামিন্স-কেন রিচার্ডসন ২টি করে উইকেট নেন।

জবাবে ২৫৬ রানের টার্গেট ৭৪ বল বাকী রেখেই স্পর্শ করে ফেলেন অস্ট্রেলিয়ার দুই ওপেনার ওয়ার্নার ও ফিঞ্চ। ১৭টি চার ও ৩টি ছক্কায় ১১২ বলে ওয়ার্নার এবং ১৩টি চার ও ২টি ছক্কায় ১১৪ বলে নিজের ইনিংস সাজান ফিঞ্চ। এই ইনিংস দিয়ে ভারতের বিপক্ষে যেকোন উইকেট জুটিতে সর্বোচ্চ রানের রেকর্ড গড়লেন ওয়ার্নার ও ফিঞ্চ। একই সাথে ওয়ানডেতে অস্ট্রেলিয়ার পক্ষে সবচেয়ে কম সময়ে ৫হাজার রান করার রেকর্ড গড়েন ওয়ার্নার।

দলের জয়ে প্রধান ভূমিকা রাখলেও, বোলারদের প্রশংসা করলেন অস্ট্রেলিয়ার অধিনায়ক ফিঞ্চ, ‘বোলাররা ভারতকে বড় জুটি গড়তে দেয়নি। তাই আমাদের জন্য কাজটা সহজ হয়েছে। ভারতের মাটিতে তাদের বিপক্ষে যেকোন জয়ই স্পেশাল। ওয়ার্নার সব সময়ই দুর্দান্ত। এটি তার ১৮তম সেঞ্চুরি, তবে গেল ২-৩ বছরে ১০টি সেঞ্চুরি করেছেন তিনি।’

লজ্জার হারে হতাশা ছাড়া কিছুই প্রকাশ করতে পারেননি ভারতের অধিনায়ক বিরাট কোহলি, ‘তিন ডিপার্টমেন্টেই হতাশাজনক পারফরমেন্স। অস্ট্রেলিয়ার মত দলের সাথে জিততে হলে দুর্দান্ত খেলতে হবে আমাদের। তাদের বোলাররা দুর্দান্ত পারফরমেন্স করেছে। এরপর ওয়ার্নার-ফিঞ্চের ব্যাটিং ছিলো প্রশংসনীয়।’

আগামী ১৭ জানুয়ারি রাজকোটে অনুষ্ঠিত হবে সিরিজের দ্বিতীয় ওয়ানডে।

সংক্ষিপ্ত স্কোর :

ভারত-২৫৫/১০ ( ৪৯.১ ওভার ,রান রেট -৫.১৮)
ধাওয়ান -৭৪ (৯১ বল )
রাহুল -৪৭ (৬১ বল )
পান্থ -২৮ (৩৩ বল )
স্টার্ক -৩/৫৬

অস্ট্রেলিয়া -২৫৮/০ (৩৭.৪ ওভার , রান রেট -৬.৮৪)
ওয়ার্নার -১২৮* (১১২ বল )
ফিঞ্চ -১১০* ( ১১০ বল )

টস : অস্ট্রেলিয়া , বোলিংয়ের সিদ্বান্ত
ফলাফল : অস্ট্রেলিয়া ১০ উইকেটে জয়ী
ম্যাচে সেরা : ডেভিড ওয়ার্নার (অস্ট্রেলিয়া)

Social Share

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *