দক্ষিণ আফ্রিকা ক্রিকেট দল , ছবি: সংগৃহীত।

করোনাভাইরাস রোধে দক্ষিণ আফ্রিকার ক্রিকেটাররা আইসোলেশনে

ভারত সফর করা দক্ষিণ আফ্রিকার ক্রিকেটারদের ১৪ দিনের জন্য সেল্ফ আইসোলেশনে থাকতে বলা হয়েছে। করোনাভাইরাসের আক্রমন বেড়ে যাওয়ায় দক্ষিণ আফ্রিকা দলের সিরিজ স্থগিত হয়ে যায়। কিন্তু ভারতে থাকার কারনে করোনাভাইরাসের বিস্তার রোধে খেলোয়াড়দের সেল্ফ আইসোলেশনে থাকতে বলা হয়েছে।

সফরের প্রথম ওয়ানডে বৃষ্টির কারনে পরিত্যক্ত হয়। এরপর দ্বিতীয় ওয়ানডের আগে সিরিজটি স্থগিত করে দেয় দুই দেশের ক্রিকেট বোর্ড। তাই না খেলেই দশ দিন পর আজ নিজ দেশে ফিরেছে দক্ষিণ আফ্রিকার খেলোয়াড়রা।

দক্ষিণ আফ্রিকা দলের সাথে ছিলেন মেডিকেল অফিসার চিকিৎসক শুয়াইব মানজরা। দলের সাথে দুবাই, দিল্লি, ধর্মশালা, লাখনৌ ও কলকাতা ভ্রমন করেছেন তিনি। মানজরা বলেন, করোনাভাইরাসে পরিস্থিতি দ্রুত পরিবর্তনের কারনে এই সফরটি বাতিল করা হয়।

মানজারা আরও বলেন, ‘এ সফরের আগে সিএসএ করোনাভাইরাসের ঝুঁকি মূল্যায়ন করেছিল । তখন আমরা ঝুঁিককে খুব কম বলে মনে করেছি। কিন্তু সফরের সময় ঝুঁকি বেড়ে যায়। বিশ্ব পরিবেশের বিষয়টি বিবেচনা করে আমাদেও এ সিদ্ধান্ত নিতে হয়েছে।’

খেলোয়াড়রা তাদের পরিবার নিয়ে শঙ্কায় ছিলো বলেও জানান মানজারা। তিনি বলেন, ‘দেশের তাদের পরিবার কি অবস্থায় আছে, তা নিয়ে শঙ্কায় ছিলো খেলোয়াড়রা।

মানজারা আরও বলেন, ভারতে খেলোয়াড়রা আইসোলোশনেই ছিলো এবং চার্টার্ড ফ্লাইটে ভ্রমন করেছে এবং স্যানিটাইজড পরিবেশের মধ্যেই ছিল।

মানজারা জানান, করোনাভাইরাসের বিস্তার প্রতিরোধে বিশেষজ্ঞের নির্দেশনা অনুসরণ করার সিদ্বান্ত নেওয়া হয়েছিলো। তিনি বলেন, ‘আমরা খেলোয়াড়দের এই রোগ সর্ম্পকে শিখিয়েছি। আমরা সুপারিশ করেছি, সকল খেলোয়াড়কে সেল্ফ আইসোলেশনে থাকতে হবে। চারপাশের মানুষদের সুরক্ষার জন্য অন্তত ১৪ দিন সামাজিক দূরত্বে থাকতে হবে।

Social Share

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *