বিপিএল

বিপিএলে যুক্ত হতে পারে ভারতীয় ক্রিকেটার

ঢাকা, ১৭ নভেম্বর ২০১৯  : পুনর্গঠিত টি-২০ টুর্নামেন্টে ভারতীয় ক্রিকেটারদের আকৃষ্ট করার বিষয়ে আশাবাদী বাংলাদেশ। এর ফলে আন্তর্জাতিক পর্যায়ে এর ভাবমুর্তি যেমন বাড়বে, তেমনি টুর্নামেন্টটি আর্থিকভাবেও সমৃদ্ধ হবে।

২০১১ সালে শুরু হওয়া বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লীগের (বিপিএল) কর্তৃত্ব নিজেদের হাতে তুলে নিয়েছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)। আগামী মৌসুম থেকে এটি আর ফ্র্যাঞ্চাইজিতে থাকছে না। বিসিবি সভাপতি নাজমাল হাসান পাপন শনিবার বলেন, ‘ভারতীয় বোর্ডের চুক্তির বাইরে থাকা ক্রিকেটারদের এখানে আনার বিষয়ে আমরা ভারতীয় কর্তৃপক্ষের কাছে প্রস্তাব দিয়েছি। যাতে তারা নীতিগত ভাবে এখানে খেলতে পারে।

তবে এবারের বিপিএলে তাদের পাব কিনা সেটি আমি নিশ্চিত নই। আশা করছি ভবিষ্যতে তাদের পাওয়া যাবে। তাদেরকে এই বিপিএলে আনার জন্যও জোর চেষ্টা চালাচ্ছি।’

নতুন মৌসুমের প্লেয়ার ড্রাফটে ৪৩৯ জন বিদেশী খেলোয়াড়ের তালিকায় এখনো পর্যন্ত তিনজন ভারতীয় ক্রিকেটারের নাম অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে। এরা হলেন, সাবেক আইপিএল শিরোপা জয়ী মানবিন্দর বিসলা, পেসার মানপ্রিত গনি ও রাজস্থান রয়্যালসের সাবেক ক্রিকেটার কুমার বোরেসা।

সাধারণত ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লীগের (আইপিএল) বাইরে বিদেশী কোন টি-২০ লীগে নিজেদের কোন ক্রিকেটরকে খেলার অনুমতি দেয় না ভারত। কিন্তু চলতি বছর কানাডায় অনুষ্ঠিত গেøাবাল টি-২০ টুর্নামেন্টে অংশ নিয়েছিলেন গনি ও সাবেক বিশ্বকাপ বিজয়ী তারকা যুবরাজ সিং। যেটি ছিল দেশটির জন্য বিরল ও ব্যতিক্রমী।

বিপিএলের ড্রাফটে স্থান হওয়া বিদেশী খেলোয়াড়দের মধ্যে রয়েছে ৯৫জন ইংলিশ, ৮৯ জন পাকিস্তানী ও ৪৪ জন শ্রীলংকান ক্রিকেটার। ম্যাচ ফিক্সিং কেলেঙ্কারির কারণে নানাভাবে বিপিএল’র আগের আসরগুলো ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। এছাড়া বিদেশী কিছু খেলোয়াড়ের চুক্তির অর্থ প্রদানে বিলম্ব হওয়ার ঘটনাও ঘটেছে। বঙ্গবন্ধু বিপিএল নাম ধারণ করে নতুন এই টুর্নামেন্ট শুরু হবে আগামী ১১ ডিসেম্বর থেকে।

Social Share

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *