‘বুশফায়ার ব্যাশ’ চ্যারিটি ম্যাচ , ছবিঃসংগৃহীত।

‘বুশফায়ার ব্যাশ’ চ্যারিটি ম্যাচে সংগ্রহ ৪৪ কোটি টাকা

অস্ট্রেলিয়ায় দাবানলে ক্ষতিগ্রস্তদের সহায়তার জন্য মেলবোর্নে হয়ে যাওয়া আজকের চ্যারিটি ম্যাচে তহবিলে জমা হয়েছে ৭৭ লাখ ৬০ হাজার ১১১ অস্ট্রেলিয়ান ডলার। বাংলাদেশি মুদ্রায় যা প্রায় ৪৪ কোটি (৪৩ কোটি ৯৪ লাখ ৬৪ হাজার ৩৬১) টাকার সমান।

দাবানলে অস্ট্রেলিয়ায় ক্ষতিগ্রস্তদের পুনর্বাসনের জন্য অর্থ সংগ্রহের জন্য বিগ আপিল স্লোগানে ‘বুশফায়ার ব্যাশ’ ম্যাচ খেলতে নামে বিশ্ব ক্রিকেটের সাবেক তারকা খেলোয়াড়রা। রিকি পন্টিং ও অ্যাডাম গিলক্রিস্টের নেতৃত্বে দু’টি দলে ভাগ হয়ে খেলেছেন ম্যাথু হেইডেন-ব্রায়ান লারা-যুবরাজ সিং-ওয়াসিম আকরাম-ব্রেট লিদের মতো ক্রিকেটাররা।

মেলবোর্নের জংশন ওভালে ১০ ওভারের ম্যাচে মাত্র ১ রানে জয় পায় পন্টিং একাদশ। এই দলের কোচের দায়িত্বে ছিলেন ভারতের মাস্টার বøাস্টার ব্যাটসম্যান শচীন টেন্ডুলকার। টস হেরে প্রথমে ব্যাট করে নির্ধারিত ১০ ওভারে ৫ উইকেটে ১০৪ রান করে পন্টিং একাদশ। জবাবে ১০ ওভারে ৬ উইকেটে ১০৩ রান করে গিলক্রিস্ট একাদশ।

পন্টিং একাদশের হয়ে সর্বোচ্চ ৩০ রান করেন ওয়েস্ট ইন্ডিজের সাবেক অধিনায়ক ব্রায়ান লারা। ১১ বল মোকাবেলা করে ৩টি চার ও ২টি ছক্কা মারেন ক্রিকেটের বরপুত্র লারা। অধিনায়ক পন্টিং ৪টি চারে ১৪ বলে ২৬ রান করেন। লারা-পন্টিং বাধ্যতামূলক আহত অবসর নেন। এ ম্যাচের নিয়মই ছিলো, ৩০ রান করলেই বাাধ্যতামূলক আহত অবসর। এছাড়া ম্যাথু হেইডেন ১৬, লুক হজ অপরাজিত ১১ ও ফোবি লিচফিল্ড ৯ রান করেন।

গিলক্রিস্ট একাদশের কোর্টনি ওয়ালশ-যুবরাজ সিং ও এন্ড্রু সাইমন্ডস ১টি করে উইকেট নেন।

জবাবে শুরুতেই ৩ ওভারে ৪৯ রান যোগ করে ফেলেন গিলক্রিস্ট একাদশের দুই ওপেনার স্বয়ং গিলক্রিস্ট ও শেন ওয়াটসন। ২টি চার ও ৩টি ছক্কায় ৯ বলে ৩০ রান করে আহত অবসর নেন ওয়াটসন। ১১ বলে ২টি চার ও ১টি ছক্কায় ১৭ রান করেন গিলক্রিস্ট।

দুই ওপেনার ফিরে যাবার পর মিডল-অর্ডার ব্যাটসম্যান দলের জন্য ভালো কিছু করতে পারেননি। তবে সাইমন্ডসের ১৩ বলে ৩টি চার ও ২টি ছক্কায় ২৯ রানের সুবাদে লড়াইয়ে ছিলো গিলক্রিস্ট একাদশ। কিন্তু সাইমন্ডস ফিরে যাবার পর ম্যাচ জয় কঠিন হয়ে পড়ে গিলক্রিস্ট একাদশের। শেষ ৬ বলে ১৭ রান দরকার পড়ে তাদের। কিন্তু শেষ ওভার থেকে ১৫ রান আসে।

Social Share

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *