ছবি:ভারত -পাকিস্তান।

ভারত-পাকিস্তানের ঠান্ডা লড়াই

গত জুলাইয়ে ইন্টারন্যাশনাল ক্রিকেট কাউন্সিলের (আইসিসি) সভাপতি পদ থেকে সরে দাঁড়ান ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিসিআই) সাবেক সভাপতি শশাঙ্ক মনোহর। তারপর এখনও নতুন সভাপতিকে পায়নি আইসিসি।

করোনাভাইরাস প্রতিরোধ

করোনাভাইরাস প্রতিরোধ

গেল সোমবার আইসিসি-র বোর্ড মিটিংয়েও কোন সমাধান আসেনি সভাপতির পদ নিয়ে। তবে এরই মধ্যে আইসিসির সভাপতি নির্বাচন ঠান্ডা লড়াইয়ে নেমেছে ক্রিকেটের দুই পরাশক্তি ভারত ও পাকিস্তান।

লড়াইটা কেমন তা জানিয়েছেন আইসিসি এক কর্মকর্তা। তিনি জানান, আইসিসির চেয়ারম্যান নির্বাচন প্রক্রিয়ায় ১৭ জন ভোট দিতে পারেন। ভারত-অস্ট্রেলিয়া ও ইংল্যান্ড চাইছে এই ১৭ জনের মধ্যে অর্ধেকের বেশি সমর্থন যে পাবেন, তাকেই পরবর্তী সভাপতি নির্বাচিত করা হবে। কিন্তু পাকিস্তান ও অন্যান্য দেশগুলোর মত ভিন্ন। তারা চাইছে ১৭ জনের মধ্যে দুই-তৃতীয়াংশ ভোট যে পাবেন, তাঁকেই সভাপতি করা হোক। তাই আইসিসির সভাপতি নির্বাচনের প্রক্রিয়া নিয়ে শুরু হয়েছে জটলা। কোন পদ্ধতিতে আইসিসি পরবর্তী সভাপতি নির্বাচন, সেটিই এখনো ঠিক করা সম্ভব হয়নি।

যা পরিস্থিতি হয়েছে, তাতে নির্বাচন ছাড়া অন্য কোনও পথও খোলা নেই আইসিসির কাছে। পারস্পরিক আলোচনার মাধ্যমে সভাপতি চেয়ারম্যান নিয়োগ দেয়ার অবস্থাও নেই।

মনোহরের বিদায়ের পর ক্রিকেটমহলে গুঞ্জন উঠে, আইসিসির সভাপতির দৌঁড়ে আছেন বিসিসিআই’র বর্তমান বস সৌরভ গাঙ্গুলী, ইংল্যান্ড এন্ড ওয়েলস ক্রিকেট বোর্ডের (ইসিবি) সভাপতি কলিন গ্রেভস এবং ওয়েস্ট ইন্ডিজ ক্রিকেট বোর্ডের সভাপতি ডেভ ক্যামেরন। আইসিসির সভাপতি হতে লড়াইয়ে নামার সম্ভাবনা রয়েছেন বর্তমানে সংস্থাটির অন্তুবর্তীকালীন দায়িত্বে থাকা হংকংএর ইমরান খাজারও।

Social Share

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *